মোবাইলে সহজে পর্ন দেখা যায় বলেই বাড়ছে ধর্ষণ! গুজরাটের মন্ত্রীর মন্তব্য ঘিরে বিতর্ক

By | April 2, 2022


Published by: Suparna Majumder |    Posted: April 2, 2022 5:08 pm|    Updated: April 2, 2022 5:08 pm

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মোবাইলে সহজেই পর্ন ফিল্ম দেখা যায়। আর তার জেরেই দেশে ধর্ষণের মতো অপরাধের হার বাড়ছে। এমনই মত প্রকাশ করেছেন গুজরাটের স্বরাষ্ট্র দপ্তরের প্রতিমন্ত্রী হর্ষ সাংভি (Harsh Sanghavi)। এক সর্বভারতীয় সংবাদ মাধ্যমে প্রকাশিত হয়েছে এই খবর। 

দিল্লির নির্ভয়া কাণ্ডের স্মৃতি এখনও ভোলেনি দেশ। গোটা দেশ তোলপাড় হয়েছিল সেই ঘটনায়। সরব হয়েছিলেন তারকা ও বিশিষ্টজনেরাও। তারপর? তারপরও ঘটে চলেছে ধর্ষণ, অত্যাচারের ঘটনা। উন্নাওয়ের স্মৃতি আজও টাটকা। সম্প্রতি আবার সল্টলেকের গেস্ট হাউসে এক ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগ ওঠে শিক্ষকের বিরুদ্ধে। অভিযোগকারিণী জানান, তাঁর অশ্লীল ভিডিও তুলে তা ভাইরাল করে দেওয়ার হুমকি দিয়েছিলেন ওই শিক্ষক। 

[আরও পড়ুন: ১০ লক্ষ চাকরির সুযোগ, ভারত ও অস্ট্রেলিয়ার মধ্যে স্বাক্ষরিত বাণিজ্য চুক্তি]

এমন ঘটনা প্রায়ই ঘটছে। কোথাও আট বছরের বালিকার যৌন নির্যাতনের খবর পাওয়া যায়, কোথাও আবার আশি বছরের বৃদ্ধার ধর্ষণের কথা শোনা যায়। এই সমস্ত ঘটনার জন্য সমাজের মানসিকতাকেই দায়ি করেছেন হর্ষ সাংভি। সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত খবর অনুযায়ী হর্ষের জানান, এখন মোবাইল ফোনের সৌজন্য পর্ন ভিডিও এবং পর্ন ফিল্ম দেখা অনেক সহজ। ফলে মানুষ এতে আসক্ত হয়ে পড়ছেন। মন্ত্রী মনে করছেন, এই জন্যই ধর্ষণের হার বাড়ছে।

সাংভি আরও জানান, বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই ধর্ষক পরিচিত, নিকটাত্মীয় বা পরিবারের কোনও সদস্য হন। বিশেষ করে নাবালিকাদের যৌন নির্যাতনের ঘটনায় এমনটা হয়ে থাকে। মোবাইল ফোনে আসক্ত হওয়ার কারণেই মানুষের অপরাধ প্রবনতা বাড়ছে বলে মনে করেন হর্ষ সাংভি। এই ধরনের ঘটনা সমাজের বড় খামতি। তবে এর জন্য শুধুমাত্র পুলিশকে দোষ দেওয়া যায় না। মানুষের মানসিকতাও বড় কারণ বলে মনে করেন মন্ত্রী। গুজরাটকে দেশের সবচেয়ে নিরাপদ রাজ্য বলেও উল্লেখ করেন হর্ষ।  

[আরও পড়ুন: প্রাক্তন স্বামীকে দিতে হবে খোরপোশ, মহিলাকে নজিরবিহীন নির্দেশ বম্বে হাই কোর্টের]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ

নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে





Source link