নেতাজি ইন্ডোর স্টেডিয়ামে পাট্টা বিলি’র সভা থেকে সার ইস্যুতে সরব মুখ্যমন্ত্রী

By | November 23, 2022


কলকাতা, ২৩ নভেম্বর (হি. স.) : এবার সার নিয়েও সরব হলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বুধবার নেতাজি ইন্ডোর স্টেডিয়াম থেকে পাট্টা বিলি’র সভা থেকে তিনি সার ইস্যুতে সরব হন বিজেপি শাসিত কেন্দ্রের বিরুদ্ধে।

এদিন তিনি বলেন, সার নিয়ে কৃষকদের একটা সমস্যা আছে। তবে কেন্দ্র সেখানেও বাংলাকে বঞ্চিত করছে। রাজ্যের প্রয়োজন ২ লক্ষ ২০ মেট্রিক টন সার, অথচ কেন্দ্র সরকার বাংলাকে দিচ্ছে ৭৭ হাজার মেট্রিক টন সার। যা আসলে সমুদ্রে এক মুঠো নুন ফেলার সমান। দেওয়ার সঙ্গে সঙ্গেই গুলে যায়। লাভ হয় না কিছুই। তাঁর হুঁশিয়ারি, এভাবে চললে সার উৎপাদনের কথা ভাববে রাজ্য।

এদিন ৫০ জনের হাতে নিজে পাট্টার নথি তুলে দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। তিনি জানিয়েছেন, এখনও পর্যন্ত পাট্টা পেয়েছেন মোট আড়াই লক্ষ মানুষ। বলেন, জমি মানে সন্তান। তাকে আগলে রাখুন। এখন আর কৃষি জমির জন্য কর বা মিউটেশনের জন্য টাকা দিতে হয় না। তাঁর বক্তব্য, ‘নিজেদের জমির একটা সুন্দর নাম দিন’। সেই জমিকে যত্ন করে রাখুন।

পাশাপাশি এদিন কেন্দ্র সরকারের ‘আচ্ছে দিন’ নিয়েও সরব হন মুখ্যমন্ত্রী। তিনি বলেন, রাজনৈতিক মতপার্থ্যক্য থাকতে পারে কিন্তু তার জন্য উন্নয়ন আটকে দেওয়া ঠিক নয়। বিজেপি শাসিত কেন্দ্রকে আক্রমণ শানিয়ে তিনি এও বলেন, বিভিন্ন কেন্দ্রীয় প্রকল্পের প্রাপ্য টাকা তো দেয়ই না কেন্দ্র, অথচ রাজ্যের প্রকল্প ‘লক্ষ্মীর ভাণ্ডার’ নিয়েও অসুবিধা তৈরি করতে চাইছে কেন্দ্র।

‘দুয়ারে সরকার’ প্রসঙ্গ টেনে এনে মুখ্যমন্ত্রী জানিয়েছেন, এবারেও ৫০ লক্ষ মানুষ দুয়ারে সরকারের ক্যাম্পে এসেছেন। লক্ষ্মীর ভাণ্ডারের সুবিধা পেতে আধার কার্ড প্রয়োজন নেই, নবান্ন এই নির্দেশিকা জারি করেছে আগেই। আবারও তা মনে করিয়ে দেন মুখ্যমন্ত্রী। বলেন, কোনও অসুবিধা হলেই ‘দুয়ারে সরকার’ ক্যাম্পে জানান। সাধারণ মানুষের জন্যই এই প্রকল্প’।



Source link